মতলব উত্তর

বাংলাদেশকে বিশ্বের রোল মডেল হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে : দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মায়া

মনিরুল ইসলাম মনির॥
বাংলাদেশ বিশ্বে রোল মডেল হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে এবং দেশ সব বাঁধা অতিক্রম করে দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। সরকারের উন্নয়ন ব্যয় প্রতি বছর বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রত্যাশিত অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি হার অর্জন করার লক্ষ্যে সরকারের উন্নয়ন প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন ত্বরান্বিত করা প্রয়োজন। দেশের উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনের জন্য সরকারের সঙ্গে একত্রে কাজ করার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানান দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি।
মন্ত্রী বুধবার চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার মোহনপুর আলী আহমদ মিয়া বহুমুখী মহাবিদ্যালয়ে নিজ মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে সাইক্লোন সেন্টারের নির্মানের কাজ পরিদর্শণকালে এ কথা বলেন।
মন্ত্রী আরো বলেন, এ বছরের শেষের দিকে জাতীয় সংসদ নির্বাচন, নির্বাচনের পূর্বেই সকল উন্নয়ন কাজ শেষ করতে হবে। উন্নয়নমূলক কাজের মধ্যে ব্রিজ নির্মাণ, বিভিন্ন সড়ক নির্মাণ, সংস্কার ও উন্নয়ন, ভূমি অফিস নির্মাণ, সাইক্লোন সেল্টার, স্কুল, কালভার্ট নির্মাণ, হাটবাজার উন্নয়নসহ বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ রয়েছে। বিশেষ করে সড়ক উন্নয়নের মাধ্যমে যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতির ফলে মানুষের জীবন মানের অনেক পরিবর্তন এসেছে। গ্রামীণ জনপদের প্রত্যন্ত অঞ্চলেও আজ পাকা সড়ক। এছাড়া ব্রিজ ও কালভার্ট নির্মাণে সহজ হয়েছে যাতায়াত ব্যবস্থা।
তিনি আরো বলেন, গ্রামগুলোতে সড়ক নির্মাণের ফলে স্থানীয়ভাবে উৎপাদিত কৃষি পন্য সহজেই বাজারজাত করা যাচ্ছে। এতে করে কৃষকরা আগের চেয়ে বেশি লাভবান হচ্ছেন। গত ৮ বছরে সরকারের ব্যাপক উন্নয়নে মতলব উত্তর ও মতলব দক্ষিন উপজেলার সকল বাজার-হাটেই যোগাযোগ নির্বিঘœ হয়েছে। এ উপজেলায় কোন কাঁচা রাস্তা নেই বললেই চলে। মানুষের জীবন মানের অনেক উন্নতি হয়েছে।
বিভিন্ন নিত্য নতুন সড়ক ও ব্রিজ নির্মাণ হওয়ায় মানুষের জীবনযাত্রা যেমন সহজ হয়েছে তেমনি তাদের আর্থিক অবস্থারও পরিবর্তন হয়েছে। সড়ক হওয়াতে গ্রামের জমির দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে। ব্রিজ-কালভার্ট নির্মাণে মানুষের কষ্ট লাঘব হয়েছে।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন- জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা কেবিএম জাকির হোসেন, ছেংগারচর পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব রফিকুল আলম জজ, মোহনপুর ইউপির স্বর্ণপদকপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সামছুল হক চৌধুরী বাবুল, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এইচএম জাহাঙ্গীর আলম, সদস্য মিনহাজ উদ্দিন খান, মোহনপুর আলী আহমদ মিয়া বহুমুখী মহাবিদ্যালয়ে অধ্যক্ষ এটিএম ফেরদৌস আহমদ, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বেলাল হোসেন মজুমদার, আওয়ামীলীগ নেতা বোরহান উদ্দিন মিয়া, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী শরীফ, কলাকান্দা ইউপি চেয়ারম্যান ছোবহান সরকার সুভা, দশানী মোহনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনসুর আহমদ, ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রহমত উল্লাহ সরকার লিখন, মতলব উত্তর উপজেলা ছাত্রলীগের তামজিদ সরকার রিয়াদ প্রমুখ।
এরপূর্বে ত্রাণ মন্ত্রীর নিজ বাসভবনে চাঁদপুর জেলা, মতলব উত্তর ও মতলব দক্ষিণ উপজেলা প্রশাসনের বিভাগীয় কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন- জেলা পুলিশ সুপার সামছুন্নাহার পিপিএম, জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা কেবিএম জাকির হোসেন, মতলব উত্তর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার, মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহীদুল ইসলাম, মতলব উত্তর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শুভাশিষ ঘোষ, কৃষি কর্মকর্তা মো. সালাউদ্দিন, প্রকৌশলী মো. এনামুল হক, থানার ওসি আনোয়ারুল হক কামাল, শিক্ষা অফিসার ইকবাল হোসেন ভূঁইয়া, মাধ্যমিক শিক্ষা কাজী আবদুল ওয়াহিদ মো. সালেহসহ বিভিন্ন বিভাগীয় কর্মকর্তাবৃন্দ।

Sharing is caring!

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares