অন্যান্য খেলাধুলা শিক্ষা হাজীগঞ্জ

বাকিলা উচ্চ বিদ্যালয়ে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ

মোহাম্মদ হাবীব উল্যাহ্ :
হাজীগঞ্জ উপজেলার বাকিলা উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ ও বিদায়ী শিক্ষকদের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর-লক্ষীপুর জেলার সংসদীয় আসনে সংরক্ষিত নারী সাংসদ ও বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি এ্যাড. নুরজাহান বেগম মুক্তা।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর সু-যোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নত বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণ হবে। ইতিমধ্যে আমরা উন্নয়নশীল দেশে উত্তোরীত হয়েছি। অচিরেই মধ্যম আয়ের দেশে স্বপ্ন পূরণ হবে।

তিনি আরো বলেন, আজকের শিক্ষার্থীরা উন্নত বাংলাদেশের নেতৃত্ব দিবে। সেজন্য শিক্ষার্থীদের দক্ষ জনশক্তিতে পরিনত হতে হবে। উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে তাদেরকে তথ্য প্রযুক্তিতে দক্ষতা অর্জন করতে হবে। সেই সাথে কারিঘরি শিক্ষার প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে। ক্রীড়া ও সাংস্কৃতি শারিরিক ও মানসিক বিকাশে সাহায্য করে উল্লেখ করে নুরজাহান মুক্তা বলেন, শিক্ষার্থীদের পড়ালেখার পাশাপাশি নিয়মিত ক্রীড়া ও সাংস্কৃতির চর্চার করতে হবে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. মজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি আবু বকর সিদ্দিক তপাদার, উপজেলা কিন্টার গার্টেন এসোসিয়েশনের সভাপতি শাহআলম মুন্সী, এলাকার গন্যমান্যদের পক্ষে আবুল হোসেন মাস্টার ও শাহআলম মাস্টার।

এ ছাড়াও বক্তব্য রাখেন, বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সদস্য বিদ্যেৎসাহী সদস্য বিল্লাল হোসেন মজুমদার, অভিভাবক সদস্য আ. ঘান্নান, মোবাশ্বের মোল্লা, ডা. আব্দুল মান্নান, সহকারি প্রধান শিক্ষক অমর কৃষ্ণ শীল প্রমূখ। বক্তব্য শেষে বিদায়ী শিক্ষক শামসুল কবির ও জাকির হোসেন বিএসসিকে সংবর্ধণা প্রদান এবং প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিক্ষার্থীদের পুরস্কার বিতরণ করা হয়। এ ছাড়াও এ্যাড. নুরজাহান বেগম মুক্তা ব্যক্তিগত উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের মাঝে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ করেন।

বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মাওলানা মজিবুর রহমানের সঞ্চালনায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সদস্য জাহাঙ্গীর হোসেন, রুজিনা খাতুন, সিনিয়র সহকারি শিক্ষক সুবাস চন্দ্র পাল, আলম আর সাপী, দিপ্তী রানী সাহা, সুমন চন্দ্র সাহা, অর্জুন চন্দ্র পাল, সঞ্জয়, নারায়ন চক্রবর্তী ও নুরুল আমিনসহ বিদ্যালয়ের অন্যান্য শিক্ষক, অভিভবাক ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares